নারীতেই নাড়ির টান- ইফতেখার হুসাইন সাকিব।

FB_IMG_1552058425710

নারী তুমি মা,তুমি বোন, তুমি তরুনী, নারী তুমি সহধর্মিনী,তুমি বিজয়িনী,তুমি গর্বিতা, তুমি নারী❤
..
নারীতেই নাড়ির টান। নারীরা কোন অবজ্ঞা বা অবলা নয়, নয় কোন অবহেলার পাত্র। হাজারো সফলতা ও ব্যর্থতার গল্পের সমন্বয়েই গঠিত নারী শব্দটি৷ এই শব্দটিতে মিশে আছে পরিশ্রম,সততা আর প্রতিবাদ। নারী মানেই শত বাঁধা প্রতিকূলতার সম্মূখীন হওয়া। নারী মানেই হাজারো দুঃখ-কষ্টের মাঝে এক চিলতে হাসি। আর এই নারীই হল আমার আপনার সফলতার মূল চাবিকাঠি।
.
একজন পুরুষের সফলতা ও ব্যর্থতা উভয় গল্পেই নারীর অবদান অনস্বীকার্য। নারীরা এখন তাদের কর্মের মধ্যে আত্নসম্মান ও সফলতা খুঁজে পায়।
“মা” হিসেবে একজন নারী সফল। তার কোন ব্যর্থতার গল্প নেই। তার পুরো দেহজুড়েই সফলতার গল্পে ভরপুর।
.
নারীরা আজ অন্যায়ের প্রতিবাদী কন্ঠস্বর। নারীরা আজ অন্যায়ের প্রতিবাদ করতে জানে। নারীরা এগিয়ে চলছে দূর্বার গতিতে তাহাদের নিত্যদিনে অধিকার আদায়ের জন্য। নারীরা এখন গর্ব।
..
বর্তমান সমাজে অনেক সফল নারীকেই আমরা আইডল হিসেবে জানি বা মানি। শুধু কি পর্দার সামনে আসা সফল নারীরাই আমাদের আইডল?? না! পর্দার পিছনে এমন হজারো আইডলের গল্প লুকিয়ে আছে। যা আমরা জানিওনা আর কখনো জানার চেষ্টা বা আগ্রহও প্রকাশ করি না। তাদের সফলতার গল্পটা সবার কাছেই অজানা রয়ে যায়। তাদের সফলতার গল্পটা তাদের ঝুলিতেই পড়ে থাকে। আর আমরা পর্দায় আবিষ্কৃত সফল নারীদেরকে অনুসরন করে থাকি। দিনশেষে পর্দার পিছনে লুকিয়ে থাকা সাফল্যের গল্পগুলো নিয়েই তাদের অবিচল পথচলা।
..
একটা সময় সমাজ নারীদেরকে একটা গন্ডির ভিতরে সীমাবদ্ধ করে রাখা হতো। নারীরা চাইলেই নিজেদের অধিকার আদায়ের জন্য লড়তে পারতো না। তাদের বাকি জীবনটুকু কাটত ওই গন্ডির ভিতরেই। একটা সময় ছিল যখন নির্যাতনের কারনে প্রায় ৬৫ শতাংশ নারীর সংসার ভেঙ্গে যেত আর প্রায় ৪০ শতাংশ নারীদের ভোগ করতে হতো মৃত্যুর স্বাদ। কিন্তু আজ নারীরা নিজেদেরকে আর ওই গন্ডির ভিতরে আবদ্ধ করে রাখতে দেয় না। তারা তাদের নিজদের স্বাধীনতা আদায় করতে মরিয়া। এবং সেই স্বাধীনতা তারা আদায়ও করেছে। নারীদের আর নির্যাতনের কারনে মৃত্যুর স্বাদ ভোগ করতে হয় না। কারন তারা এখন স্বাবলম্বী,অন্যায়ের প্রতিবাদী।
..
তবুও কিছু কিছু অঞ্চলভেদে এখনও নারীরা নির্যাতিত। সেই অঞ্চলের কুসংস্কার বা কুপ্রথা ও সমাজের অকথ্য কিছু নিয়মের কারনে তারা নির্যাতিত। তাদের অপরাধ তারা নারী হিয়ে জন্মেছে। তারা আজও বোধহয় জানেনা যে নারীরা আজ তাদের অধিকার আদায়ে সক্ষম। তারা আজও জানেনা কিভাবে তারা তাদের অধিকার আদায় করবে। তারা জানেনা যে প্রতিবছর ৮ই মার্চে তাদের অধিকার আদায়ের জন্য বিশ্ব নারী দিবস পালন করা হয়।
..
আসুন আমাদের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় অবহেলিত ও নির্যাতিত নারীদের কুসংস্কার বা কুপ্রথা নামক আইন থেকে রক্ষা করি।
..
বিশ্বের সকল নারীদের প্রতি রইল শ্রদ্ধা, ভালবাসা ও সম্মান❤

print

কমেন্ট করুন