আমার বসন্ত- মীর সজিব।

রিলেশনের ৮ নাম্বার বসন্ত আজ। গত বসন্তগুলো থেকে আজকের এই বসন্তটা যেন কোকিলের মধুর ডাকের মতোই। বসন্তের কোকিল যেমন মধুর ডাকে প্রাণোচ্ছল হয়ে থাকে। আজকের এই বসন্তে আমরাও প্রাণোচ্ছল ।
এই মাসে খুবই ব্যস্ততা ছিলো। নতুন প্রজেক্ট, নতুন প্রজেক্ট মানেই ব্যস্ততা। খাওয়ার সময়, ঘুমানোর সময় কখন যে কোনটা হয় বুঝা বড় দায় ।
স্নিগ্ধা’কে সময় দিতে পারছিলাম নাহ। স্নিগ্ধা তার ক্লাসে যাওয়ার আগে ফোন দেয়, আর ক্লাস থেকে বের হয়ে ফোন দেয়, ওর সাথে বড়জোড় ২ মিনিট কথা বলেই রেখে দিতাম। এতই ব্যস্ততা ছিলো যে এর থেকে বেশি সময় দিতে পারতাম নাহ।
স্নিগ্ধা আমার ব্যস্ততা সহজেই মেনে নিতো। খুব বেশি একটা রাগ করেনি কখনো। ভালবাসার কাছে এসব ব্যস্ততা নিতান্তই হার মানতো।
বসন্তের ১ম দিন। স্নিগ্ধা’কে নিয়ে পহেলা ফাল্গুনে বের হতে হবে। একদিকে নিউ প্রজেক্ট আরেকদিকে স্নিগ্ধা’কে নিয়ে বের হতে হবে। সিনিয়র বস’কে একটা মেইল পাঠিয়ে অফিস থেকে বের হয়ে পার্কে চলে আসি।
গেইটের সামনে স্নিগ্ধা দাঁড়িয়ে আছে। স্নিগ্ধা’র খুব ইচ্ছে শাড়ি পড়বে। শাড়ি পড়ে আমার সাথে হাটবে। যদিও সে খুব কমই শাড়ি পড়ে।
স্নিগ্ধা আজ শাড়ি পড়ে এসেছে। বসন্তের শাড়ি। স্নিগ্ধা খুবই মায়াবী একটা মেয়ে৷ তার চোখের তাকানোতে সব সময় মায়া লেগে থাকে। আজ শাড়ি পড়াতে স্নিগ্ধা’র রূপ যেন হাজার গুন বেড়ে গেছে। স্নিগ্ধা’কে বেহেস্তের হুরপরী মনে হচ্ছে আজ। জান্নাতের হুরপরীগুলো বুঝি স্নিগ্ধা’র মতোই সুন্দর হয়।
স্নিগ্ধা’র হাতে হাত রেখে পার্কের টিকিট কেটে গেইট দিয়ে পার্কের ভিতরে প্রবেশ করি। বসন্তের ছোয়া এই পার্কের গাছগুলোতেও লেগে আছে, কেমন যেন একটা মাতাল আবহাওয়া। ভালোবাসায় ভরপুর মনে হচ্ছে চারিপাশ। আমাদের মতো অনেক কাপল হাতে হাত রেখে হাটছে। কাধে-মাথা রেখে বসে আছে। কেউ কবিতা বলছে কেউ গান গাইছে। এ যেন ভালবাসার স্বর্গরাজ্য।
আমি আর স্নিগ্ধা হাটতে হাটতে একটা খালি বেঞ্চিতে বসলাম। আমাদের পাশে স্নিগ্ধা’র হাতব্যাগ আর আমার সানগ্লাস’টি রাখা।
স্নিগ্ধা আমার কাধে মাথা রেখে বসে আছে। বেঞ্চিটার সামনে একটা জলাশয়। জলাশয়ে তিনটি সারস পাখি।পাখিগুলো আপন মনে পানির উপর খেলা করছে। স্নিগ্ধা আমার কাধে মাথা রেখে সেই দৃশ্য এক দৃষ্টিতে দেখছে।
স্নিগ্ধা’র হাতে আমার হাত রাখা এখনো। আমি স্নিগ্ধা’র হাত শক্ত করে ধরে আছি। স্নিগ্ধাও যেন আজ বসন্তের ছোয়ায় একটু সতেজ হয়ে আছে। বসন্তের কোকিলের মতোই প্রাণোচ্ছল।
তবে সত্যি কথা বলতে কি, স্নিগ্ধা শাড়ি পড়াতে তাকে যেন নতুন বউয়ের মতো লাগছে। স্নিগ্ধা আর আমি যেন নব্য বিবাহিত যুগল।
print

কমেন্ট করুন